নিজস্ব প্রতিবেদক:
জমকালো আয়োজনে কক্সবাজার সাউন্ড এণ্ড লাইটিং সিস্টেম ওনার্স এসোসিয়েশন (কসলা) এর নবগঠিত কমিটির মিলনমেলা ও অভিষেক অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার (২৬ সেপ্টেম্বর) জারা কনভেশন হলে অনুষ্ঠিত মিলনমেলা ও অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পৌর মেয়র মুজিবুর রহমান।

এসময় তিনি বলেন, ‘একসময় আমাদের দেশ খুবই গরীব ছিল। গোলামী জিঞ্জিরায় আবদ্ধ ছিলাম আমরা। কিন্তু বঙ্গবন্ধু নেতৃত্বে দেশ স্বাধীন হওয়ার পর বদলে গেছে সবকিছু। স্বনির্ভর জাতি হিসেবে আমরা বিশ্বে আত্মপ্রকাশ করি। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। উন্নয়নে বাংলাদেশ এখন বিশ্বে রোল মডেল। তাই কক্সবাজারের পর্যটনকে এগিয়ে নিতে সবাইকে সম্মিলিতভাবে কাজ করতে হবে।’

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন আশেক উল্লাহ রফিক এমপি। তিনি বলেন, ‘যেকোন অনুষ্ঠানের সফলতার পেছনে শব্দ ও সাউন্ড শিল্পীদের গুরুত্বপূর্ণ অবদান রয়েছে। তাই শুধু বাণিজ্যিক নয়, সকল শিল্পীদের দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে সেবার মনমানসিকতা নিয়ে কাজ করতে হবে। সুসময় ও দুঃসময়ে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। তবেই একটি সুন্দর সমাজ বিনির্মাণ সম্ভব।’

কক্সবাজার সাউন্ড এণ্ড লাইটিং সিস্টেম ওনার্স এসোসিয়েশনের সভাপতি সাহেদ হোসেনের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মোরশেদ আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন মহেশখালী পৌরসভার মেয়র মকছুদ মিয়া, কালামারছড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান তারেক বিন ওসমান শরীফ, টুয়াক সভাপতি আনোয়ার কামাল, এস,এম কিবরিয়া, একেএম মুনীবুর রহমান টিটু, তোহা ও এস,এ কাজল।

পরে শব্দ ও আলোকসজ্জা বিষয়ক কর্মশালায় অংশ নেওয়া প্রশিক্ষাণার্থীদের মাঝে সনদ বিতরণ করা হয়। এরপর অনুষ্ঠিত হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও ডিনার।

এসময় কক্সবাজার সাউন্ড এণ্ড লাইটিং সিস্টেম ওনার্স এসোসিয়েশনের সহ—সভাপতি কামাল উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক নেজাম উদ্দিন, জাহেদসহ প্রায় শতাধিক সদস্য উপস্থিত ছিলেন।