বান্দরবানে নবাগত এসপির সাথে সাংবাদিকদের পরিচিতি সভা

জঙ্গী-মাদকের ক্ষেত্রে জিরো টলারেন্স ঘোষণা

বান্দরবান প্রতিনিধি:

বান্দরবানে নবাগত পুলিশ সুপার মেহাম্মদ জাকির হোসেন মজুমদার দৃঢ়তার সাথে বলেছেন,জেলায় আমার প্রথম কাজ হবে নিরাপদ সমাজ গড়ে তোলা এবং জঙ্গী ও মাদকমুক্ত করণ। তিনি মাদক ও জংগী তৎপরতাকে জিরো ট্রলারেন্স হিসেবে দেখছেন বলে জানান। সাংবাদিক এবং পুলিশ এক অপরের পরি পুরক বলে অভিহিত করেছেন তিনি। জেলার নাইক্ষংছড়ি সীমান্তের জিরো লাইনে অবস্থানরত রোহিঙ্গারা যাতে বাংলাদেশের ভুখন্ডে অনুপ্রবেশ করতে না পারে সেই লক্ষ্যে বিজিবির সাথে পুলিশ সদস্যরাও কাজ করে যাচ্ছেন বলে পুলিশ সুপার জানিয়েছেন।

বান্দরবানে নতুন পুলিশ সুপার পদে যোগদানের তিনদিনের মাথায় মোহাম্মদ জাকির হোসেন মজুমদার বুধবার বিকেলে জেলা সদরে কর্মরত ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকদের সাথে এক পরিচিতি সভায় কথাগুলো বলেছেন।

পুলিশ সুপারের সভাকক্ষে আয়োজিত পরিচিতি সভায় উপস্থিত তিনজন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হচ্ছেন মো.কামরুজ্জামান, মো.আলী হোসেন, ইয়াছিন আরাফাত এবং সদর থানার ওসি মো.গোলাম ছরোয়ার। সভায় জেলার গুরুত্বপুর্ণ বিষয় নিয়ে মত বিনিময় করেন।

বান্দরবানে ৭ মার্চ উদযাপিত

বান্দরবান প্রতিনিধি:

বান্দরবান জেলা আওয়ামীলীগের উদ্যোগে বুধবার বিকালে বংগবন্ধু মুক্তমঞ্চে ৭ মার্চ উদযাপন উপলক্ষে র‌্যালী ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। র‌্যালীটি বংগবন্ধু মুক্তমঞ্চে থেকে বের হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন শেষে একইস্থানে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও পার্বত্য আঞ্চলিক পরিষদ সদস্য শফিকুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য দেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পাবত্য জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ক্যশৈহ্লা,সহসভাপতি আবদুর রহিম চৌধুরী,সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র মোহাম্মদ ইসলাম বেবী, পার্বত্য জেলা পরিষদ সদস্য ক্যসাপ্রæ মারমা ও লক্ষীপদ দাশ,মোজাম্মেল হক বাহাদুর এবং দলীয় নেতা অজিত দাশ।

জেলার ৭টি উপজেলা সদরেও পৃথকভাবে আওয়ামীলীগের উদ্যোগে ৭মার্চ পালিত হয়েছে বলে দলীয় সুত্রে জানানো হয়েছে। #

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.